কর্পোরেট

বাংলাদেশ ব্যাংক রংপুর শাখার বিপুল পরিমাণ অর্থ আত্মসাত, বরখাস্ত ৪


বাংলাদেশ ব্যাংক রংপুর শাখা থেকে বিপুল পরিমাণ অর্থ আত্মসাত করা হয়েছে এমন গুরুতর অভিযোগ পাওয়া গেছে। এই অভিযোগে ৪ জন কর্মচারীকে সাময়িক বরখাস্ত করেছেন ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক। তিনদিন আগে ওই কর্মচারীদের বরখাস্ত করা হলেও এ নিয়ে ব্যাংক কর্তৃপক্ষ কঠোর গোপনীয়তা রক্ষা করছেন। ফলে নানা রহস্যের জাল বিস্তার হচ্ছে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছিুক বাংলাদেশ ব্যাংক রংপুর শাখার একজন দায়িত্বশীল কর্মকর্তা জানান, ব্যাংকের ‘মূদ্রা-নোট পরীক্ষক’ শাখার ৪ কর্মচারী দীর্ঘদিন ধরে পুরাতন নোট বাছাই করতে গিয়ে বিপুল পরিমাণ টাকা সরিয়ে ফেলেন। বিষয়টি ব্যাংকের উর্ধতন কর্র্তৃপক্ষের নজরে এলে সংশ্লিষ্ট শাখার চার কর্মচারী সাজেদ মোহাম্মদ খালেদ, রাবেয়া বেগম, শামীম মিয়া ও শেফালী বেগমকে গত ১১ জুন সাময়িক বরখাস্ত করা হয়।

এ ঘটনা নিয়ে এখনও কোনও তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়নি বলে ব্যাংকের ওই সূত্র জানায়। এখন ব্যাংকের রক্ষিত ভোল্ডের টাকা গণনা করে হিসাব মেলানো হচ্ছে বলে জানা গেছে। তবে কি পরিমাণ টাকা আত্মসাত করা হয়েছে তা কেউ নির্দিষ্ট করে জানাচ্ছেন না।

মোবাইল ফোনে ব্যাংলাদেশ ব্যাংকের রংপুর শাখার ডিজিএম ফজলার রহমান এর কাছে এ নিয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, বিধি মতে আমি এ নিয়ে কোনও মন্তব্য করতে পারি না। তবে যা শুনেছেন তাই লেখেন। আর আমি এ বিষয়টি নিয়ে কাজ করছি তাই আমার পক্ষে কোনও মন্তব্য করা ঠিক হবে না।

ব্যাংকের জিএম এর সাথে কথা বলার জন্য তার টেলিফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করা হলেও তিনি ফোন রিসিভ করেননি। তাই তার কোন মন্তব্য পাওয়া যায়নি। একইভাবে টেলিফোন রিসিভ না করায় ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালকের মন্তব্য পাওয়া যায়নি।